গোয়ালন্দ ট্রাক ড্রাইভার খুনে থানায় মামলা, ২ আসামী নারায়ণগঞ্জ থেকে গ্রেপ্তার

জহুরুল ইসলাম হালিম | রাজবাড়ী টেলিগ্রাফ / ৩৫৩ বার পড়া হয়েছে
সর্বশেষ আপডেট : সোমবার, ২২ মার্চ, ২০২১

সংবাদটি শেয়ার করুন

জহুরুল ইসলাম হালিম:

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দের ট্রাক ড্রাইভার রনি পাঠান (২০) খুনের মামলার প্রধান ২ আসামীকে নারায়ণগঞ্জ থেকে গ্রেপ্তার করেছে ডিবি পুলিশ।

২১ মার্চ রবিবার রাতে রাজবাড়ী ডিবি পুলিশের একটি দল অভিযান চালিয়ে নারায়ণগঞ্জের সাইনবোর্ড এলাকা থেকে তাদেরকে গ্রেপ্তার করে নিয়ে আসে।

১/ সুজন (২২),পিতা মজিবর গ্রাম- সাকের ফকির পাড়া, ২/জীবন (২৪), পিতা মজিবর গ্রাম- ময়ছের মাতুব্বর পাড়া, ৩/ জুয়েল (২৫), পিতা আব্দুল সরদার গ্রাম – সাকের ফকির পাড়া, ৪/ জীবন (২০), পিতা অজ্ঞাত মাতা আজিবর গ্রাম- ময়ছের মাতুব্বর পাড়া, ৫/ হৃদয় (২৫), পিতা- খবির গ্রাম- সাকের ফকির পাড়া সর্ব সাং পৌর ৯ নং ওয়ার্ড গোয়ালন্দ, রাজবাড়ী।
আরো অজ্ঞাত কয়েকজন

গ্রেপ্তারকৃতরা হলো, গোয়ালন্দ পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডের শাকের ফকির পাড়ার মজিবরের ছেলে সুজন (২২) ও একই ওয়ার্ডের ময়ছের মাতুব্বর পাড়ার মুজিবরে ছেলে জীবন (২৪)।

গ্রেপ্তার অভিযানে অংশগ্রহণকারী রাজবাড়ী ডিবির এসআই মোজাম্মেল হক জানান, ডিবি হেফাজতে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করেছে। ২২ মার্চ সোমবার তাদেরকে আদালতে হাজির করা হলে তারা ফৌজদারী কার্যবিধির ১৬৪ ধারায় জবানবন্দী প্রদান করে।

উল্লেখ্য, নিখোঁজের ৩ তিন দিন পর গত ২০ মার্চ বিকালে গোয়ালন্দ পৌরসভার ৯ নং ওয়ার্ডের মজিবর মাস্টারের পুকুর পাড়ে মাটির নীচে পুঁতে রাখা অবস্থায় ট্রাক ড্রাইভার রনি পাঠানের লাশ উদ্ধার হয়। সে একই ওয়ার্ডের আদর্শ গ্রাম এলাকার আব্দুল মতিন পাঠানের ছেলে। লাশ উদ্ধারের পর নিহতের বড় ভাই জিয়া পাঠান বাদী হয়ে গোয়ালন্দ ঘাট থানায় একটি হত্যা মামলা (নং-২৩, ধারা-৩০২/২০১/৩৪ দঃ বিঃ) দায়ের করেন। মামলায় গ্রেপ্তারকৃত সুজন ও জীবনসহ ৫ জনকে আসামী করা হয়। গোয়ালন্দ ঘাট থানার মামলাটি তদন্ত করছেন এসআই দেওয়ান শামীম খান।

Facebook Comments


এ জাতীয় আরো খবর
NayaTest.jpg