শিরোনাম
দৌলতদিয়া ইউনিয়ন যুবলীগ সাধারণ সম্পাদক বহিস্কার গোয়ালন্দে ছাত্রলীগ নেতাকে মারধরের অভিযোগে উপজেলা সেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি আটক- গোয়ালন্দে ৭০০ গ্রাম গাঁজাসহ দুই জন আটক গোয়ালন্দ প্রবাসী ফোরামের উদ্যোগে অসচ্ছল মেধাবী শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষাবৃত্তি প্রদান রাজবাড়ীতে শেখ হাসিনার নির্দেশে মুক্তিযোদ্ধাদের মাঝে সম্মানি বিতরণ অবৈধ ড্রেজার ব্যবসায়ীকে জরিমানা, ৭টি ড্রেজার জব্দ গোয়ালন্দে অসহায় মানুষের মাঝে খাবার বিতরণ এমপি কন্যা চৈতীর উদ্যোগে জাঁকজমকপূর্ণ আয়োজনের মাধ্যমে শেষ হলো রাজবাড়ী সার্কেল আয়োজিত ইসলামিক কুইজ প্রতিযোগিতা ২০২১ করোনা ভাইরাস থেকে পরিত্রাণের জন্য রাজবাড়ী সার্কেলের বিশেষ দোয়া মাহফিল গোয়ালন্দে প্রধানমন্ত্রীর ঈদ উপহার নতুন পোশাক পেল সুবিধাবঞ্চিত শিশুরা

শারদীয় দুর্গোৎসবের আজ মহাঅষ্টামী

সুজন বিষ্ণু | নিজস্ব প্রতিবেদক / ৩৩৫ বার পড়া হয়েছে
সর্বশেষ আপডেট : শনিবার, ২৪ অক্টোবর, ২০২০

0Shares

আজ শনিবার (২৪ অক্টোবর) মহা অষ্টমী। দেবী পূজার ষষ্ঠী থেকে দশমী, এর মধ্যে মহা ধুমধামে পালিত হয় মহা অষ্টমী। এ তিথিতে সন্ধী পূজা, কালী পূজা করা হয়।

রাজবাড়ী সদরে বিভিন্ন মন্দিরে ঘুরে দেখা যাই সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে পূজার অঞ্জলি প্রদান করতে। সাহাপাড়া সার্বজনীন দূর্গা মন্দিরে অঞ্জলি দেওয়ার সময় যারা মাস্ক ছাড়া এসেছিলেন তাদের মন্দির কমিটির পক্ষ থেকে মাক্স প্রদান করা হয়।

সাহাপাড়া সার্বজনীন দূর্গা মন্দিরের কোষাধ্যক্ষ বিজয় সেন রাজবাড়ী টেলিগ্রাফকে জানান, আমরা সরকারের নির্দেশ মেনেই আয়োজন করেছি। গত বছরের তুলনায় এবার আংশিক আয়োজন করেছি।কোন অালোকসজ্জা নেই, শুধু সাদা লাইট রেখেছি। মন্দিরে অঞ্জলিতে যারা মাস্ক পড়ে আসে নাই তাদের মাস্ক দিয়েছি৷ এছাড়া হেন্ড সেনিটাইজার রেখেছি।

শুক্রবার দুর্গতিনাশিনী মা দেবীর নবপত্রিকা প্রবেশ ও স্থাপনের মাধ্যমে মহাসপ্তমী পূজা শুরু হয়। সকালে ত্রিনয়নী দেবী দুর্গার
চক্ষুদান করা হয়। মা দুর্গার বােধনের মধ্য দিয়ে বুধবার শুরু হয় বাঙালি হিন্দু সম্প্রদায়ের প্রধান ধর্মীয় উৎসব শারদীয়
দুর্গা পূজা।

এ বছর দুর্গা এসেছেন দোলায় চড়ে এবং বিদায় নেবেন গজে (হাতি) করে। আগামী সোমবার বিজয়া দশমী পর্যন্ত ঢাকের বাদ্যে মুখরিত থাকবে পূজামণ্ডপগুলো।

শাস্ত্রমতে, যা কিছু দুঃখ-কষ্টের বিষয়, যেমন– বাধাবিঘ্ন, ভয়, দুঃখ-শোক, জ্বালা-যন্ত্রণা এসব থেকে ভক্তকে রক্ষা করেন দেবী দুর্গা। শাস্ত্রকাররা দুর্গা নামের অর্থ করেছেন- দুঃখের দ্বারা যাকে লাভ করা যায় তিনিই দুর্গা। দেবী দুঃখ দিয়ে মানুষের সহ্যক্ষমতা পরীক্ষা করেন। তখন মানুষ অস্থির না হয়ে তাকে ডাকলেই তিনি তার কষ্ট দূর করেন। দুর্গা পূজার সঠিক সময় বসন্তকাল। কিন্তু বিপাকে পড়ে রাজা রামচন্দ্র শরতে দেবীকে অসময়ে জাগিয়ে পূজা করেন। সেই থেকে অকালবোধন হওয়া সত্ত্বেও শরৎকালেই দুর্গা পূজার প্রচলন হয়।

Facebook Comments


এ জাতীয় আরো খবর
NayaTest.jpg