শিরোনাম
ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে ডুকে মারপিটের ঘটনায় মামলা করে নিরাপত্তা হীনতায় মুক্তিযোদ্ধার সন্তান  বালিয়াকান্দি উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি সোহেল সম্পাদক কামরুল ইজিবাইক চাপায় প্রথম শ্রেণির ছাত্রীর মৃত্যু মানিকগঞ্জ কুকুরের কামড়ে একদিনে আহত ৮২, জনমনে আতঙ্ক সরকারি কলেজের প্যাডে নোটিশ জারি করে ঘুষের টাকা সংগ্রহ করলেন অধ্যক্ষ অস্থায়ী পশুর হাটের টাকা ভাগাভাগি নিয়ে প্রবাসী আকবর খান ও দাদশী চেয়ারম্যানের মধ্যে সংঘর্ষ, আহত ৭ নতুন ঘর পেল অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্ত সোহরাব শেখ মাটি খুঁড়তেই বেরিয়ে এলো ৪৮ ভরি স্বর্ণ মুন্নু মেডিকেলে বিলের জন্য আটকে রাখল শিশু রোগীকে, অতঃপর মৃত্যু মাজারের সামনের অবৈধ ভাবে বসতবাড়ি করার পায়তারা, এলাকাবাসীর বাঁধা 

গোয়ালন্দে অষ্টম শ্রেণি পড়ুয়া স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ, গ্রেফতার-১

নিউজ ডেস্ক | রাজবাড়ী টেলিগ্রাফ / ৬৯৬ বার পড়া হয়েছে
সর্বশেষ আপডেট : শনিবার, ১০ অক্টোবর, ২০২০

0Shares

রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলাধীন ছোটভাকলা ইউনিয়ন ৭নং ওয়ার্ড চরবালিয়াকান্দি গ্রামের অষ্টম শ্রেণি পড়ুয়া এক স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় শনিবার (১০অক্টোবর) স্কুল ছাত্রীর মা বাদী হয়ে গোয়ালন্দ ঘাট থানায় একটি ধর্ষণ মামলা দায়ের করেন।
ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত সাব্বির সেখ (১৮) কে গ্রেফতার করেছে গোয়ালন্দ ঘাট থানা পুলিশ। সে গোয়ালন্দ উপজেলার ছোটভাকলা ইউনিয়নের স্বরূপারচক গ্রামের আ. সালাম সেখের ছেলে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ছেলের বাড়ি থেকে মেয়ের বাড়ির দুরত্ব কম হওয়ায় সাব্বির ওই স্কুল ছাত্রীর সাথে প্রেমের সম্পর্ক গড়ে তোলে। গত ২৪ সেপ্টেম্বর স্কুল ছাত্রীর মা তার বড় মেয়ের শশুর বাড়িতে বেড়াতে যায়। ওই দিন রাত সাড়ে ৭টার দিকে ওই স্কুল ছাত্রী বাড়িতে একা থাকার সুযোগে অভিযুক্ত সাব্বির সেখ স্কুল ছাত্রীর সাথে দেখা করতে যায় তার ঘরে । এসময় স্কুল ছাত্রীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে তার ইচ্ছার বিরুদ্ধে ধর্ষণ করে। স্কুলছাত্রী কান্নাকাটি করলে স্থানীয়রা এগিয়ে আসে এবং অভিযুক্ত সাব্বির সেখান থেকে পালিয়ে যায়। পরবর্তীতে স্কুলছাত্রীর মা বিভিন্ন ভাবে বিষয়টি তার মেয়ের কাছে জানতে চাইলে তাকে কিছু না বলে স্কুলছাত্রী এক পর্যায়ে তার ভগ্নিপতির কাছে ওই ঘটনা খুলে বলে। পরবর্তীতে পরিবারের সবার সাথে পরামর্শ করে শনিবার গোয়ালন্দ ঘাট থানায় একটা মামলা দায়ের করে স্কুলছাত্রীর মা।

এ ব্যাপারে অভিযুক্তের ভাই রাজবাড়ী টেলিগ্রাফ কে বলেন, আমার ভায়ের বিরুদ্ধে যে অভিযোগ আনা হয়েছে তা সম্পুর্ণ মিথ্যা এবং বানোয়াট। মেয়ের পরিবার থেকে আমাদের বাড়িতে বিয়ের প্রস্তাব দিলে আমরা ৪ বছর পর বিয়ে দিতে সম্মত হই কিন্তু তারা এই প্রস্তাবে রাজি না হয়ে তারা দুই-একদিনের মধ্যেই বিয়ে করতে বলেন। আমরা তাতে রাজি না হলে আমাদের দেখে নিবে বলে হুমকি দেন এবং তার পরেই এই মিথ্যা মামলা করেন।

এ বিষয়ে গোয়ালন্দ ঘাট থানার ওসি (ভারপ্রাপ্ত) আব্দুল্লাহ আল তায়াবীর জানান, মামলা দায়েরের পর অভিযুক্ত সাব্বিরকে গ্রেফতার করা হয়েছে। ভিকটিমকে ডাক্তারী পরিক্ষার জন্য রাজবাড়ী সিভিল সার্জন অফিসে এবং আটককৃত অভিযুক্ত সাব্বির সেখকে রাজবাড়ীর আদালতে পাঠানো হয়েছে।

ফিরোজ আহমেদ
গোয়ালন্দ প্রতিনিধি

Facebook Comments


এ জাতীয় আরো খবর
NayaTest.jpg