খন্দকার লাইব্রেরী রাজবাড়ী
শিরোনাম
স্বাস্থ্যের সাবেক ডিজির গাড়ি চালকের ঢাকায় ২৪টি ফ্ল্যাট, ৩টি বাড়ি রাজবাড়ীতে ট্রেনে কাটা পড়ে নারীর মৃত্যু শীতে করোনা পরিস্থিতি আরও খারাপ হতে পারে: প্রধানমন্ত্রী গোয়ালন্দ দৌলতদিয়াতে মাদক সহ ৩ জন গ্রেপ্তার এবং মোবাইল কোর্টে তিন মাসের সাজা হরিণের মাংস সহ একজনকে আটক করেছে পুলিশ ছাতকে দূর্গা পূজা কমিটির সাথে পূজা উদযাপন পরিষদের মতবিনিময় সভা রাজধানীর বনানীতে আগুন, নিয়ন্ত্রণে ৮ ইউনিট রাজবাড়ীতে নতুন করে ২০ জন করোনা আক্রান্ত , মোট মৃত্যু ২৪ জন গোয়ালন্দ সহ একশ’ উপজেলায় নির্মিত হবে সাংস্কৃতিক কেন্দ্র ‘মানবিক রাজবাড়ী’ ও ‘মানবিক ফরিদপুর’ নামক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

জানুন, বিশ্বের সবচেয়ে ছোট দেশ কোনটি?

অনলাইন ডেস্ক | রাজবাড়ী টেলিগ্রাফ / ৬৫ বার পড়া হয়েছে
সর্বশেষ আপডেট : বৃহস্পতিবার, ১৩ আগস্ট, ২০২০

সংবাদটি শেয়ার করুন
  • 21
    Shares

ইংল্যান্ডের উত্তর সাগরে এই রাষ্ট্রটির অবস্থান।
‘সিল্যান্ড’ হল একটি অণুরাষ্ট্র ( Micronation মাইক্রোনেশন)। এর সরকার হল “প্রিন্স মিচেল বেটস”, এটি প্রতিষ্ঠিত হওয়ার ঘোষণা হয় ২ সেপ্টেম্বর ১৯৬৭ সালে।

ক্ষুদ্রতম দেশটির মোট আয়তন ৫৫০ বর্গমিটার। দেশটির একটি রাজধানীও রয়েছে। দেশটির রাজধানীর নাম HM Fort Roughs। এই দেশটি সাগরের উপর ভাসমান অবস্থায় রয়েছে। মাটি থেকে অনেকটা উপরে দুটো বড় বড় ইস্পাতের পাইপের উপর এই দেশটির অবস্থান। দেশটিতে কোনো মাটি নেই। পুরোটাই ইস্পাত। দেশটিতে যেতে হলে ইংল্যান্ডের উত্তর উপকূল থেকে ১০ কিলোমিটার সাগরের গভীরে যেতে হবে। দেশটিতে একটিমাত্র ঘর চোখে পড়বে আর তা হল এই দেশের রাজপ্রাসাদ। রাজপ্রাসাদের উপর দেশটির পতাকা উড়তে দেখা যাবে।

এটি ২য় বিশ্বযুদ্ধের সময় ব্যবহৃত একটি সমুদ্র বন্দর। জার্মান সেনারা যে কোনো সময় ইংল্যান্ড আক্রমণ করতে পারে এমন আশঙ্কা থেকে ব্রিটিশ সেনাবাহিনী ইংল্যান্ডের উপকূলভাগে সমুদ্র দুর্গ বানানোর পরিকল্পনা করল। সে পরিকল্পনা থেকেই উপকূল থেকে ১০ কিলোমিটার গভীরে বানানো হলো মউনশেল সি ফোর্ট। এখান থেকে শত্রু যুদ্ধ জাহাজগুলোর ওপর নজরদারি করা হতো। প্রয়োজনে শত্রু জাহাজে আক্রমণ পরিচালনার কাজও চলত। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধ শেষ হলে অন্যান্য অসংখ্য দুর্গের সঙ্গে ব্রিটিশ সেনাবাহিনী এটাকেও পরিত্যক্ত ঘোষণা করে।

ব্রিটিশ নাগরিক Major Paddz Roy Bates ও তার পরিবার ১৯৬৭ সালের ২রা সেপ্টেম্বর এ জায়গাটির স্বত্বাধিকারী প্রাপ্ত। তারা একে একটি স্বাধীন মাইক্রো রাষ্ট্র হিসেবে ঘোষণা দেন। যদিও পৃথিবীর কোনো দেশ এখনও সিল্যান্ডকে স্বীকৃতি দেয়নি কিন্তু কেউ তাদের বিরোধিতা করেনি। এর মোট জনসংখ্যার ৩ জনই Bates পরিবারের সদস্য যারা এই রাজ্যের রাজা, রানী ও রাজপুত্র। দেশটির আছে নিজস্ব পতাকা, নিজস্ব মুদ্রাব্যবস্থাও। কিন্তু সে দেশটিতে নেই কোনো প্রজা কিংবা সাধারণ নাগরিক।

Facebook Comments


এ জাতীয় আরো খবর