খন্দকার লাইব্রেরী রাজবাড়ী
শিরোনাম
স্বাস্থ্যের সাবেক ডিজির গাড়ি চালকের ঢাকায় ২৪টি ফ্ল্যাট, ৩টি বাড়ি রাজবাড়ীতে ট্রেনে কাটা পড়ে নারীর মৃত্যু শীতে করোনা পরিস্থিতি আরও খারাপ হতে পারে: প্রধানমন্ত্রী গোয়ালন্দ দৌলতদিয়াতে মাদক সহ ৩ জন গ্রেপ্তার এবং মোবাইল কোর্টে তিন মাসের সাজা হরিণের মাংস সহ একজনকে আটক করেছে পুলিশ ছাতকে দূর্গা পূজা কমিটির সাথে পূজা উদযাপন পরিষদের মতবিনিময় সভা রাজধানীর বনানীতে আগুন, নিয়ন্ত্রণে ৮ ইউনিট রাজবাড়ীতে নতুন করে ২০ জন করোনা আক্রান্ত , মোট মৃত্যু ২৪ জন গোয়ালন্দ সহ একশ’ উপজেলায় নির্মিত হবে সাংস্কৃতিক কেন্দ্র ‘মানবিক রাজবাড়ী’ ও ‘মানবিক ফরিদপুর’ নামক স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

রাজবাড়ী জেলাতে “রাজবাড়ী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়” চাই

রাজবাড়ী টেলিগ্রাফ ডেস্ক / ৭১৫ বার পড়া হয়েছে
সর্বশেষ আপডেট : শুক্রবার, ৭ আগস্ট, ২০২০

সংবাদটি শেয়ার করুন
  • 2.3K
    Shares

বর্তমান পৃথিবীর চালিকা শক্তি হচ্ছে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি। আগামীতে যে দেশ যত বেশি নতুন নতুন প্রযুক্তি উদ্ভাবন করবে এবং তার যথাযথ প্রয়োগ করবে তাদের হাতেই চলে যাবে পৃথিবীর নিয়ন্ত্রণের চাবিকাঠি। আর নতুন প্রযুক্তি উদ্ভাবনের জন্য আধুনিক বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ভিত্তিক শিক্ষার কোন বিকল্প নেই। তাই একটি দেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের প্রধান শর্ত হিসেবে মানসম্মত আধুনিক শিক্ষাকে বিবেচনা করা হয়। কিন্তু ক্রমবর্ধমান জনসংখ্যার এই বাংলাদেশে প্রতিনিয়ত যে হারে ছাত্র-ছাত্রী বৃদ্ধি পাচ্ছে তার সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে
আধুনিক বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি শিক্ষার প্রসার হচ্ছে না। তাই এই ক্রমবর্ধমান ছাত্র-ছাত্রীদের আধুনিক বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি শিক্ষায় শিক্ষিত করে গড়ে তুলতে অধিক সংখ্যক মানসম্মত আধুনিক বিজ্ঞান, প্রযুক্তি ও প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন করা একান্ত প্রয়োজন।

রাজবাড়ী জেলাটি নদী বেষ্টিত কৃষি নির্ভর একটি মনোমুগ্ধকর জনপদ। রাজবাড়ীকে ১৯৮৪ সালে জেলা হিসেবে ঘোষণা করা হয়। জেলা হিসেবে ঘোষণা করা হলেও রাজবাড়ীতে এখনো আধুনিক উচ্চশিক্ষার জন্য কোনো শিক্ষা প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠেনি। যার ফলে রাজবাড়ীসহ আশেপাশের জেলার ছাত্র-ছাত্রীরা উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত হওয়ার সুযোগ থেকে বঞ্চিত হচ্ছে বিশেষ করে এই এলাকার মেয়েরা। এই কারনে রাজবাড়ী জেলার
জনগণ আর্থ-সামাজিক ভাবে দেশের অন্য জেলা থেকে পিছিয়ে পড়ছে। আমরা জানি কোন জেলাতে একটি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপিত হলে ওই এলাকাতে ধীরে ধীরে উচ্চশিক্ষার হার বেড়ে যেতে থাকে এবং গড়ে উঠতে থাকে অবকাঠামো যার ফলে ওই এলাকার আর্থ-সামাজিক অবস্থার আমূল পরিবর্তন আসে। তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে রাজবাড়ীবাসীর প্রানের দাবি এই জেলাতে একটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন করা হোক।

বাংলাদেশকে বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলাদেশ ও মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার পরিকল্পনার উন্নত বাংলাদেশ বিনির্মাণে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি নির্ভর উচ্চশিক্ষা অপরিহার্য। বাংলাদেশ আজ ধাপে ধাপে উন্নত দেশের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে, এই উন্নয়নের ধারাকে আরো বেগবান করার জন্য তথ্য ও প্রযুক্তি নির্ভর শিক্ষার কোন বিকল্প নেই। এই তথ্য ও প্রযুক্তি নির্ভর শিক্ষাই পারে আমাদের এই বিশাল জনগোষ্ঠীর কর্মসংস্থানের দার
উন্মোচন করতে। আমাদের পাশের দুইটি দেশ চীন এবং ভারত তাদের ছাত্র-ছাত্রীদেরকে তথ্য ও প্রযুক্তি ভিত্তিক উচ্চশিক্ষায় শিক্ষিত করে সুফল পাচ্ছে। আজ সারা বিশ্বের বড় বড় তথ্য ও প্রযুক্তি ভিত্তিক প্রতিষ্ঠান গুলোতে চীন এবং ভারতে ছাত্র-ছাত্রীরা রাজত্ব করছে।

আমাদের দেশের জন্য আশার কথা হচ্ছে, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বর্তমান সরকার তথ্য ও প্রযুক্তি শিক্ষার উপর গুরুত্ব আরোপ করেছেন। ইতিমধ্যে, মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বিজ্ঞান, প্রযুক্তি ও প্রকৌশল শিক্ষা সম্প্রসারণের জন্য প্রতিটি জেলাতে একটি করে বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের ঘোষণা দিয়েছেন। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণা অনুযায়ী, অনেক গুলো জেলাতে বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপিত হয়েছে এবং আরো কিছু জেলাতে
বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের কাজ চলছে।

মানব জাতির সার্বিক উৎকর্ষ ও সমৃদ্ধি অর্জনের জন্য বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ভিত্তিক উচ্চশিক্ষার ভূমিকা অপরিহার্য। তাই পশ্চাদপদ এই রাজবাড়ী জেলার আর্থ-সামাজিক অবস্থার উন্নয়নে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি শিক্ষার কোনো বিকল্প নেই। আর বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি ভিত্তিক শিক্ষার সম্প্রসারণের জন্য একটি আধুনিক বিশ্ববিদ্যালয় অপরিহার্য। উল্লেখ্য যে, আমাদের রাজবাড়ী জেলাতে ভালো পরিবেশে স্বল্পমূল্যে পর্যাপ্ত জমির ব্যবস্থা রয়েছে যা একটি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের জন্য অনেক সহায়ক ভূমিকা রাখবে।

বহু কৌণিক দিক থেকে রাজবাড়ীতে একটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপন এখন সময়ের দাবিতে
পরিণত হয়েছে। তাই মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে রাজবাড়ীবাসীর প্রানের দাবি এই জেলাতে একটি
বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের ঘোষণা দেওয়া হোক। আমাদের এই দক্ষিণাঞ্চলের সব বড় বড়
উন্নয়ন যেহেতু মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাড়া হয়নি, তাই এই কাজটিও তাঁর হাত ধরেই হবে এটাই
আমারা রাজবাড়ীবাসী প্রত্যাশা করছি।
রাজবাড়ীতে একটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় স্থাপনের জন্য রাজবাড়ী জেলার সকল রাজনীতিবিদ,
শিক্ষক, সাংবাদিক, শিল্প-সাহিত্যিক, সরকারী কর্মকর্তা, অন্যান্য পেশাজীবী এবং ছাত্র-ছাত্রীসহ সবাইকে যার
যার অবস্থান থেকে যথাযথ ভূমিকা রাখার জন্য অনুরোধ জানাচ্ছি।

লেখকঃ
মোহাম্মদ আমজাদ হোসেন
সহকারী অধ্যাপক
নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়।
পিএইচডি গবেষক
ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি অব আয়ারল্যান্ড গ্যালওয়ে, আয়ারল্যান্ড।

Facebook Comments


এ জাতীয় আরো খবর